রামুতে জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের দূর্গাপূজার মণ্ডপ পরিদর্শন

আবদুল মালেক,রামু:

কক্সবাজারের রামুতে ৭ অক্টোবর রাতে বেশ কয়েকটি সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজার মণ্ডপ পরিদর্শন করেন কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক কামাল হোসেন।
তিনি রামুতে কালী বাড়ি মন্দিরের পূজা মণ্ডপে পৌছালে তাকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেন সার্বজনীন দুর্গাপূজা উদযাপন পরিষদের আহবায়ক তপন মল্লিক।জেলা প্রশাসক শুভেচ্ছা বিনিময়ে  সেখানে বলেন,রামু সাংস্কৃতিক দিক দিয়ে সমৃদ্ধ একটি জায়গা।দূর্গা পূজায়  সর্বস্তরের মানুষের উপস্থিতি তার প্রমাণ করে।তিনি সনাতন ধর্মাবলম্বী লোকজনের সাথে শারদীয় শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।এসময় তার সাথে মণ্ডপ পরিদর্শন করেন কক্সবাজারের পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসাইন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শাহজাহান আলী,রামু উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সোহেল সরওয়ার কাজল, রামু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রণয় চাকমা,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আফসানা জেসমিন পপি,ভাইস চেয়ারম্যান সালাহ উদ্দিন,রামু থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল খায়ের, ওসি তদন্ত রামু থানা এস এম মিজানুর রহমান সহ রাজনৈতিক ও পেশাজীবি এবং হিন্দু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ। পরে তারা রামুর বেশ কয়েকটি মণ্ডপ পরিদর্শন করেন।এদিকে আজ সমাপ্ত হল শারদীয় দুর্গোৎসবের মহানবমী।আগামীকাল বিজয়া দশমীর মধ্য দিয়ে শেষ হবে সনাতনী হিন্দুগণের এই উৎসবের।
রামুর বেশ কযেকটি মণ্ডপ ঘুরে দেখা গেছে  মণ্ডপে  ভক্তবৃন্দের ঢল।ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা ও ধর্মীয় ভাব গাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে তারা পালন করছে তাদের সর্বোচ্চ ধর্মীয় উৎসব।রামুতে ৩০ টি মণ্ডপে এবার শান্তিপূর্ণ পরিবেশে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। প্রতিদিনই বেলা বাড়ার সাথে ভক্ত ও দর্শনার্থীদের ভীড় জমায় এবং এ ভীড় গভীর রাত পর্যন্ত  থাকে।